পাকিস্তানের কাছে ৫৫ রানে হারল বাংলাদেশ

0

 

1458134493

 

ওয়ার্ল্ড টি-টোয়েন্টির মূলপর্বে নিজেদের প্রথম ম্যাচে পাকিস্তানের কাছে ৫৫ রানে হারল বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল। বুধবার টসে জিতে বিধ্বংসী ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশকে ২০২ রানের বিশাল টার্গেট দেয় পাকিস্তান।জবাবে ব্যাট করতে নেমে ২০ ওভারে ৬ উইকেটে হারিয়ে ১৪৬ রান করে বাংলাদেশ। ফলে ৫৫ রানের হার মানতে হয় বাংলাদেশকে।

 

ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই হোচট খায় বাংলাদেশ। দলীয় ১ রানের মাথাতেই মোহাম্মদ আমিরের বলে আউট হন বাংলাদেশি ওপেনার সৌম্য সরকার। এরপর রানের চাকা অব্যাহত রাখেন তামিম ও সাব্বির রহমান। পরে ব্যক্তিগত ২৫ রানে পাকিস্তানি অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদির বলে আউট হলেন সাব্বির রহমান। ইনিংসের ৬ষ্ঠ ওভারে নিজের প্রথম ওভার করতে এসেই সাব্বিরের উইকেট তুলে নেন আফ্রিদি।

 

পরে ৬.২ ওভারেই অর্ধশতক তুলে নিয়েছে বাংলাদেশ। ওপেনার তামিম ইকবালের ২২ ও সাব্বির রহমানের ২৫ রানের উপর ভর করেই ৫০ পূর্ণ করে বাংলাদেশ।পাকিস্তানের দেয়া বিশাল ২০২ রানের লক্ষ্যকে টপকাতে সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন ছিল ওপেনার তামিম ইকবালের বড় ইনিংস। তামিম খেলেও যাচ্ছিলেন তার মতো। তবে শেষ পর্যন্ত ২০ বলে ২৪ রানে থামে তামিমের রানের চাকা। পাকিস্তানি অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদির বলে আউট হন তিনি।

 

আফ্রিদিকে অন সাইডে ছক্কা মারতে গিয়ে ক্যাচ আউট হন তামিম। আউট হওয়ার আগে ২ ছক্কা মারেন তামিম। এরপর অল্প সময়েই বিদায় নেন মাহমুদউল্লাহ ‍রিয়াদও। ব্যক্তিগত চার রানে ইমাদ ওয়াসিমের বলে আউট হন তিনি। পরে মোহাম্মদ আমিরের বলে ক্যাচ আউট হন বাংলাদেশি ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। দলীয় ১১০ রানের মাথায় ব্যক্তিগত ১৮ রানে আউট হন তিনি। সরফরাজ আহমেদের তালুবন্দি হওয়ার আগে তিনটি চার মারেন মুশফিক। ব্যক্তিগত ২ রানে বিদায় নিলেন মোহাম্মদ মিঠুন। দলীয় ১১৭ রানের মাথায় মোহাম্মদ ইরফানের বলে আউট হন তিনি।

 

তবে একাই খেলা চালিয়ে যান সাকিব আল-হাসান। টি-টোয়েন্টিতে এক হাজার রান পূরণ করার পাশাপাশি নিজের ক্যারিয়ারের আরেকটি অর্ধশতক তুলে নেন।

 

এর আগে বুধবার ওয়ার্ল্ড টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের বিপক্ষে টসে জিতে ব্যাট করতে নেমে মোহাম্মদ হাফিজের ৬২ ও আহমেদ শেহজাদের ৫২ রানের উপর ভর করে ২০১ রান সংগ্রহ করে পাকিস্তান।

 

টসে জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরু থেকেই বাংলাদেশি বোলারদের উপর চড়া হতে থাকেন পাকিস্তানি ব্যাটসম্যানরা। ১১ ওভারেই শতক পূরণ করে পাকিস্তান। শেহজাদের ৪৪ ও হাফিজের ৪০ রানের উপর ভর করেই এই সংগ্রহ পায় পাকিস্তান। বাংলাদেশের হয়ে প্রথম আঘাত হানেন আরাফাত সানি। পাকিস্তানের ওপেনার শারজিল খানকে সাজঘরে ফেরান তিনি। ১০ বল শেষে ব্যক্তিগত ১৮ রান করে আউট হয়েছেন শারজিল।

কিন্তু আরেক পাশ আগলে রেখে খেলে যান আহমেদ শেহজাদ। শেষ পর্যন্ত৮ চারে ৩৯ বলে ৫২ রান করেন  শেহজাদ। তাকে আউট করেন শেহজাদকে আউট করেন বাংলাদেশি অলরাউন্ডার সাব্বির রহমান। কিন্তু এরপরও  ব্যাটিং নৈপুন্য অব্যাহত রাখেন মোহাম্মদ হাফিজ। আরাফাত সানির বলে বাউন্ডারিতে দারুণ এক ক্যাচ ধরে মোহাম্মদ হাফিজকে আউট করেন সৌম্য সরকার। সৌম্যের হাতে তালুবন্দী হওয়ার আগে ৪২ বলে ৬২ রান করেন হাফিজ। ইনিংসের ১৭তম ওভারে আরাফাত সানিকে লং অনের উপর দিয়ে ছক্কা মারতে গেলে বাউন্ডারিতে দুর্দান্ত ক্যাচ ধরেন সৌম্য সরকার।

 

এরপর শূন্য রানেই উমর আকমলকে প্যাভিলিয়নে ফেরান বাংলাদেশি পেসার তাসকিন আহমেদ। ইনিংসের ১৮তম ওভারে তাসকিনের বলে সাকিব আল হাসানের হাতে ধরা পড়েন উমর আকমল। এরপর হাল ধরেন পাকিস্তানের অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদি। চার-ছক্কার ফুলঝুড়িতে রানের গতি অব্যাহত রাখেন বুম বুম আফ্রিদি। এরপর অর্ধশতক থেকে মাত্র এক রান দূরে তার রানের চাকা থামিয়ে দেন তাসকিন আহমেদ।

 

শূন্য রানেই উমর আকমলকে প্যাভিলিয়নে ফেরালেন বাংলাদেশি পেসার তাসকিন আহমেদ। ইনিংসের ১৮তম ওভারে তাসকিনের বলে সাকিব আল হাসানের হাতে ধরা পড়েন উমর আকমল।

Comments

comments

Comments

comments

Menu

Koreabashi